June 05, 2009

Hinduism In Brief

হিন্দু ধর্ম নিয়ে অনেক অনেক তথ্য আছে ইন্টারনেটে। সেগুলো এবং আমার যা যা জানি, তাই আমি এখানে লিখতে চেষ্টা করব। আমি চেষ্টা করব এগুলো এবং ইন্টারনেট থেকে আমি যা যা শিখবো, তাই এখানে লিখতে চেষ্টা করব।
হিন্দু ধর্মের উৎস
হিন্দু ধর্মের উৎস নিয়ে অনেকে অনেক কিছুই বলে। কিন্তু হিন্দু ধর্ম নিয়ে জানতে চাইলে এই বুলেটগুলো দেখতে হবে:
  • এই আধুনিক যুগেই এই ধর্মের নাম হিন্দুধর্ম হিসেবে বলা হয়েছে।
  • হিন্দুধর্ম কোনো একটি ধর্ম নয়, বরংচ এটি অনেকগুলো মিলিয়ে একটা ধর্ম বা বিশ্বাস।
  • এই ধর্মের উৎস কোন সালে, তা বলা যাবে না। এই ধর্মের শুরুর তারিখ বলা যাবে না বা শেষ হবার তারিখও বলা যাবে না।
এই ধর্মের আরো উৎস হয়েছে প্রাচীন রাজ্যগুলো থেকে যেখানে রাজনৌতিক এবং সামাজিক অনেক অনেক কারণে এই পরিবর্তনগুলো আনতে হয়েছিলো।
সময়
হিন্দু ধর্মে সময়কে একটি গতিমান এবং ঘুর্ণিত একটি বস্তু হিসেবে বিশ্বাস করা হয়। এটি একটি লিনিয়ার লাইনে চলে যেটাতে কোনো প্রকার পরিবর্তন নেই এবং একই রেটে চলে। চারটি যুগ হয়ে এগুলোকে বিশ্বাস করা হয়:
  1. সত্যযুগ- ধর্ম য়েখানে রক্ষা থাকবে। এই যুগে "মিথ্যা বলতে কিছুই ছিলো না। এই সময়কালে দেবতারা পৃথিবীর উপর শাসন করত এবং সবকিছুকে Ideal হিসেবে ঘোষনা করা হতো।
  2. ত্রেতাযুগ: এই যুগের প্রধান কিছু ঘটনা হচ্ছে ভগবান বিষ্ণুর তিনটি অবতার এই যুগে প্রকাশ হয়েছিলো।
  3. দ্বাপরযুগ: ভগবার শ্রীকৃষ্ণ এই যুগে জন্ম নিয়েছিলেন এবং তার মৃত্যুর পরপরই এই যুগের ক্রান্তি হয়।
  4. কলিযুগ: সর্বশেষ যুগ এই চক্রের। এখানে সকল প্রকার পাঁপ হবে যেগুলোর কারণে পৃথিবীতে বিষ্ণুর অবতার "কল্কি"র জন্ম নিতে হবে এবং সকলকিছুকে ধংস করতে হবে।

No comments:

Post a Comment